Print Sermon

এই সমস্ত প্রচারের পান্ডুলিপি এবং ভিডিওগুলি এখন প্রতি মাসে 215টিরও বেশি দেশের প্রায় 116,000 কম্প্যুটারে www.sermonsfortheworld.com ওয়েবসাইটে পাঠানো হয়| আরও শত শত লোক ইউ টিউবের ভিডিওর মাধ্যমে এগুলি দেখেন, কিন্তু খুব শীঘ্রই তারা ইউটিউব ছেড়ে বেরিয়ে যান, কারণ প্রত্যেকটি ভিডিও প্রচার তাদেরকে আমাদের ওয়েবসাইটের দিকে পরিচালিত করে| ইউটিউব আমাদের ওয়েব সাইটে লোক এনে দেয়| প্রচারের এই পান্ডুলিপিগুলি প্রতি মাসে 34টি ভাষায় প্রচারিত হয় হাজার হাজার লোকের কাছে| প্রচারের এই সব পান্ডুলিপিগুলি গ্রন্থসত্ত্ব দ্বারা সংরক্ষিত নয়, কাজেই প্রচারকগণ আমাদের অনুমতি ছাড়াই এইগুলি ব্যবহার করতে পারেন| মুসলিম এবং হিন্দু রাষ্ট্রসমেত, সমগ্র পৃথিবীতে সুসমাচার ছড়িয়ে দেওয়ার এই মহান কাজে সাহায্য করার জন্য কিভাবে আপনি একটি মাসিক অনুদান প্রদান করতে পারেন তা জানতে অনুগ্রহ করে এখানে ক্লিক করুন|

যখন আপনি ডঃ হেইমার্সকে লিখবেন সর্বদা তাকে জানাবেন যে আপনি কোন দেশে বাস করেন, অথবা তিনি আপনাকে উত্তর দিতে পারবেন না| ডঃ হেইমার্সের ই-মেল ঠিকানা হল rlhymersjr@sbcglobal.net |




একত্রে আমরা সবল! একাকী আমরা দূর্বল!

TOGETHER WE ARE STRONG! ALONE WE ARE WEAK!
(Bengali)

লেখক : ডঃ আর. এল. হাইমার্স, জুনিয়র।
by Dr. R. L. Hymers, Jr.

২০১৫ সালের, ২১শে জুন, প্রভুর দিনের সকালবেলায় লস্ এঞ্জেল্সের
ব্যাপটিষ্ট ট্যাবারন্যাকল মন্ডলীতে এই ধর্ম্মোপদেশটি প্রচারিত হয়েছিল
A sermon preached at the Baptist Tabernacle of Los Angeles
Lord’s Day Morning, June 21, 2015

“এবং আইস আমরা পরস্পর মনোযোগ করি যেন প্রেম ও সৎক্রিয়ার সম্বন্ধে পরস্পরকে উদ্দীপিত করিয়া তুলিতে পারি: এবং আপনারা সমাজে সভাস্থ হওয়া পরিত্যাগ না করি, যেমন কাহারও কাহারও অভ্যাস; বরং পরস্পরকে চেতনা দিই: আর তোমরা সেইদিন যত অধিক সন্নিকট হইতে দেখিতেছ, ততই যেন এ বিষয়ে তৎপর হই” (ইব্রীয় ১০:২৪-২৫)|

আমার অনেক প্রচারের মতন, এটাও শুরু হয়েছিল অস্পষ্ট অস্বচ্ছভাবে| আমি শুনেছিলাম যে দুটি নতুন অল্পবয়সী মেয়ে আমাদের যুবকদের পছন্দ করত| “তারা খুবই বন্ধুতুল্য ছিল!” এভাবে তারা বলত| কিন্তু তারা আমাকে পছন্দ করত না| আমি এই বিষয়ে এতটাই চিন্তা করেছিলাম যে, আমার মনে এইসব তালগোল পাকিয়ে গিয়েছিল| সেটা এই নয় যে আমার প্রচার ছিল বিরক্তিকর| আমার প্রচারগুলিকে আকর্ষণীয় করে তুলবার জন্যে আমি সত্যিকারেই কঠোর পরিশ্রম করি| যখন আমি প্রচার করি যুবকেরা সাধারনত তাদের মুখ ইষৎ হাঁ করে, আমার দিকে তাদের দৃষ্টি স্থির রেখে চুপ করে বসে থাকে| এটা আমার ব্যক্তিত্ব এমনটা নয়| আমি যুবকদের সঙ্গে থাকাটা পছন্দ করি| এবং তারা এমন কথা বলতে পারে| আমার মনে হয় যে প্রত্যেকটি প্রচারের শেষে আমি যে কয়েকটি কথা বলে থাকি সেগুলিই এই মেয়ে দুটিকে বিশৃঙ্খল করেছিল| আমি একটি ছোট প্রার্থনা করি| তারপর আমি টিভি ক্যামেরার খুব কাছে চলে যাই| আমি ইউটিউব এবং আমাদের ওয়েবসাইটে শ্রোতাদের সাথে কথা বলি| যে সমস্ত লোকেরা প্রচার দেখছেন তাদের উদ্দেশ্যে আমি এইরকম কিছু কথা বলি – “আপনারা আর যাই করুন না কেন, একটি বাইবেল প্রচারকারী মন্ডলী, আরো পছন্দসইভাবে বলা যায় যে রবিবারের সন্ধ্যায় সভা করে এইরকম একটি মন্ডলীতে আসুন| মন্ডলীর দরজা খোলা থাকলে সর্বদা সেখানে থাকুন|” দূরদর্শনে প্রচারের শেষে জেরী ফালওয়েল যে কথাগুলি বলতেন, তার কয়েকটি কথা আমি তুলে নিয়েছিলাম| “মন্ডলীর দরজা খোলা থাকলে সর্বদা সেখানে থাকুন|” তারপরে আমি প্রায়ই বলি, “এক মন্ডলী থেকে অন্য মন্ডলীতে দৌড়ে বেড়াবেন না|” আমার প্রচারের শেষে, এইগুলিই ছিল সেই কথা, যা সেই নূতন দুটি মেয়ে পছন্দ করত না| বাস্তবিকপক্ষে, তারা এই জন্যেই মন্ডলী ছেড়ে চলে গিয়েছিল|

আমি কী এই ধরনের বলা বন্ধ করতে যাচ্ছি? না – আমি এগুলো বলতেই থাকব| কেন? কারণ যুবকদের এখন ঠিক এটাই করা প্রয়োজন – সেই কারণে! কিশোর বয়সের শেষে এবং কুড়ি বছরের শুরুতে আছে এইরকম মনপরিবর্তনকারীদের প্রায় নিরবিচ্ছিন্ন সংযোজনের দ্বারা আমাদের মন্ডলী বৃদ্ধি পায়| এটা খুব বিরল| বেশির ভাগ মন্ডলীই তাদের ৮৮% যুবকদের হারায়| কিন্তু সেটা হয় অন্য কোন প্রচারের জন্যে| আমরা ঐ একই বয়সের শক্তপোক্ত যুবকদের সংযোজনের দ্বারা বৃদ্ধি পাচ্ছি যাদের বেশির ভাগ মন্ডলীই হারিয়ে ফেলে| তাদের কোন খোঁচা মেরে – বা তাদের সঙ্গে “মিষ্টি কথা” বলে আমরা এটা করি না| ঐ ধরনের অভিগমনের কন্ঠস্বরের চিহ্ন বোঝার পক্ষে আজকালকার বাচ্চারা যথেষ্ট চালাক| আমি তাদের সঙ্গে সরাসরি কথা বলি| আমি বলি, “তোমাদের যা প্রয়োজন তা হচ্ছে এই – এবং এই কারনে তোমাদের এটার প্রয়োজন|” কোন ছলচাতুরী নয়! সরাসরি শিক্ষাদান! এটা গ্রহণ কর অথবা বর্জন কর! এমনকী তারা যদি ছেড়েও দেয় তবু তারা জানবে যে আমি তাদের সঙ্গে সৎ ছিলাম! আমি আপনাদের আমার মতন করে তোলার চেষ্টা করছি না! আমি চেষ্টা করছি আপনাদের মন পরিবর্তনে প্রবেশ করাতে| আমার উদ্দেশ্য হল আপনাকে প্রকৃত খ্রীষ্ট বিশ্বাসীতে পরিনত করতে সাহায্য করা এবং মন্ডলীর একজন বলিষ্ঠ সদস্য তৈরী করা!

আপনি বলছেন, “আমার এই মন্ডলীর অতি প্রয়োজন কেন?” আপনাকে বলব কেন প্রয়োজন? কারণ মন্ডলীবিহীন অবস্থায় আপনার কিছুই স্থায়ী হয় না, তাই! অলভিন টোফলার তার ফিউচার শক্ বইতে এই বিষয়ে লিখেছেন| তিনি “the death of permanence,” “the concept of transience,” “friendships in the future,” “serial marriages,” এবং “how to lose friends” এই সমস্ত বিষয়ে বলেছেন| পরিবর্তন, পরিবর্তন, পরিবর্তন| চলমানতা এবং পরিবর্তনশীলতা আমাদের স্থায়ী গৃহ দেয় না, স্থায়ী বন্ধু দেয় না, এবং স্থায়ী সম্পর্ক দেয় না! আমাদের জানা সমস্ত কিছু এবং সমস্ত লোক হচ্ছে শুধু অস্থায়ী! এইগুলি সমস্তই যুবকদের ভবিষ্যৎকালীন আঘাত দেয়! টোফলার এই বইটি লিখেছিলেন ১৯৭০ সালে| গত বৃহস্পতিবারে আমি যখন বইটি আবার পড়ছিলাম তখন চিন্তা করেছিলাম যে বইটা ছয় মাস আগে লেখা হতে পারত! প্রত্যেকেই এতটাই গতিময়, এবং সর্বদা এতটাই পরিবর্তনশীল, যে প্রতি রাত্রে, যুবকেরা রাস্তার লোকেদের মতন বেড়িয়ে আসছে, যারা আলাদা আলাদা রাস্তায় স্থিত, আলাদা আলাদা কার্ডবোর্ড বাক্সের মধ্যে বসবাস করে| আশ্চর্য্যের কিছু নয় যে এত বেশি সংখ্যক শিশুদের কোন না কোন ভাবে চিকিৎসা করাতে হচ্ছে! জগৎ তাদের চারিদিকে - এত দ্রুত ঘুরে চলছে যে তারা চিন্তা করছে এই জীবনকে সহণীয় করে তোলার জন্যে তাদের পিল বা ওষুধের বড়ি খাওয়া দরকার| এটা আমাকে সব সময়ে বিস্মিত করে যে বাচ্চারা সেই সমস্ত “বন্ধুদের” বিষয়ে বলে যাদেরকে তারা মাত্র এক বা দুই ঘন্টার জন্যে জেনেছে| আমি ভুল খুঁজতে বসছি না| আমি শুধু পর্যবেক্ষণ করছি মাত্র| আমার কাছে এইরকম মনে হচ্ছে যেন আজকের দিনের বাচ্চারা খুব দ্রুত তাদের “বন্ধু” পরিবর্তন করে ফেলছে ঠিক যেমন দ্রুততায় আমরা আমাদের অন্তর্বাস বদল করি!

পল ম্যাককার্টনী ছিলেন আমার চেয়ে ঠিক এক বছরের ছোট| তিনি হিপ্পি হওয়ার পক্ষে প্রায় যথেষ্ট নবীন ছিলেন| অনেক হিপ্পিদের মতন, বিট্লদের মধ্যে, পল ম্যাককার্টনী, একাকীত্বের সম্পর্কে উদ্বিগ্ন ছিলেন| তিনি এই অদ্ভূত গানটি লিখেছিলেন যেটা মিঃ গ্রিফিত একটু আগেই গাইলেন – গানটি বিটলদের দ্বারা গাওয়ার জন্যে একসময় খুব জনপ্রিয় হয়েছিল যখন তিনি এটাকে জন্ লেন্ননের সাথে একসাথে গেয়েছিলেন| এই গানে দুটি লোকের বিষয়ে বলা হচ্ছে, এদের একজন হলেন এলিনর রিগবাই (এক অবিবাহিতা মধ্যবয়ষ্কা মহিলা) এবং অন্যজন হলেন ফাদার ম্যাকাঞ্জি, এক যাজক যিনি একাকী বাস করতেন|

ফাদার ম্যাকেঞ্জি লিখিতেছেন প্রচারের শব্দগুচ্ছ যাহা কেহ শুনিবে না|
কেহ নিকটে আসে না|
তাহার প্রতি দেখ কর্মরত, রাত্রে মোজা সেলাই করিতেছেন যখন সেখানে কেহ নাই|
তিনি কিসের পরোয়া করেন?

একজন বৃদ্ধ যাজক, প্রচার লিখছেন যার উপরে কেউ কখনও নজর করবে না| তার নিজের মোজার গর্ত বা ছেঁড়া জায়গাগুলি নিজেই সেলাই করছেন “যখন সেখানে কেহ নাই|” “তিনি কিসের পরোয়া করেন?” তিনি এত বেশি একাকী থাকতে অভ্যস্ত ছিলেন যে এই ঘটনা তাকে আর কোনভাবেই বিব্রত করছিল না|

এলিনর রিগবাই মন্ডলীতে মৃত হইলেন এবং নিজ নামের সহিত কবরপ্রাপ্ত হইলেন|
কেহ আসে নাই|

তার নাম বহন করবে এমন কোন সন্তান না রেখে তিনি মারা গিয়েছিলেন| তার অন্ত্যোষ্টিক্রিয়ার সভাতে কেউ আসেনি|

ফাদার ম্যাকেঞ্জি হস্তের ময়লা মুছিতেছেন যেহেতু তিনি কবরস্থান হইতে আসিলেন|
কেহই পরিত্রাণ পায় নাই|

তার অন্ত্যোষ্টিক্রিয়ায় কেউ আসেনি| কেউ তার প্রচার শোনেনি| কেউ পরিত্রাণ পায়নি| এবং তখন সেই সমবেত গান,

সমস্ত একাকী মানুষ,
তাহারা সকলে কোথা হইতে আসিয়াছে?
সমস্ত একাকী মানুষ,
তাহারা সকলে কোথাকার অধিবাসী?

এই ধরনের চিন্তাধারা হিপ্পিদের উদ্বিগ্ন করে তুলেছিল| তারা একসাথে হাজারে হাজারে উপস্থিত হয়েছিল – সানফ্রানসিস্কোর হেইট এস্ব্যুরির, বার্কলেতে, হলিউড Blvd., ভেনিস সমুদ্রতটে| তাদের মধ্যে একদল লোক খুঁজে পেয়ে যেত একটা পুরানো বাড়ি| তারা সবাই মিলে সেখানে বাস করত| অন্যেরা সেখানে এক বা দুই রাত্রের জন্য “ঠেলেঠুলে” ঢুকে যেত| তারা সবাই একসাথে থাকতে চেয়েছিল| তারা একটা সাম্প্রদায়িক অনুভূতি চেয়েছিল| তাদেরকে মন্ডলীতে নিয়ে আসাটা খুব সহজ ছিল, বিশেষ করে যদি আপনি তাদের অনুমতি দিতেন তাদের লোমওয়ালা মোটা ব্যাগ টেনে এনে মেঝের উপর বসে পড়ার| তাদেরকে ডাকা হত “যীশুর খেয়াল” অথবা “যীশুর লোক” বলে|

ব্যাপটিষ্টেরা এই সমস্ত ব্যাপারে সত্যি সত্যিই অজ্ঞ ছিলেন| তারা খুব সহজেই দশ হাজারেরও বেশি ঐ ধরনের শিশুকে পেয়ে যেতে পারতেন| কিন্তু ব্যাপটিষ্টরা তাদের ভয় পেয়েছিল| এখন এটা খুব দেরী হয়ে গেছে – চিরস্থায়ীভাবে খুব দেরী| ক্যারিস্মেটিক এবং পেন্টিকোষ্টালেরা তাদের সকলকে পেয়ে গেছে| আজকের দিনে ব্যাপটিষ্টরা প্রাচ্য জগত ও স্পেনদেশীয় শিশুদের ভয় করে| তারা খুব সহজেই তাদের মধ্যে দশ হাজারেরও বেশি শিশুদের পেতে পারত| কিন্তু তারা তাদেরকেও ভয় পেত| খুব শীঘ্রই দেরী হয়ে যাবে – চিরস্থায়ীভাবে খুব দেরী - পুনরায়|

কিন্তু ছোট বাচ্চারা আপনাদের সম্প্রদায়গত বাড়ির কোন দরকার নাই “ঠেলেঠুলে” সেখানে ঢোকার জন্যে| এমনকী আপনাদের সেইরকমের একটি সম্প্রদায়ের প্রয়োজন অনুভব করারও প্র্য়োজন নাই| খুব বেশিদিন আগে নয় আমি আমার এক বন্ধুর সঙ্গে কথা বলছিলাম যিনি ঐ “যীশুর লোক”দের সঙ্গে কাজ করতেন| আমি তাকে জিজ্ঞাসা করেছিলাম যে কেন বর্তমানে যুবক ব্যক্তিরা একটি সম্প্রদায় থাকার প্রয়োজণীয়তা উপলব্ধি করে না যেমন হিপ্পিরা করে থাকেন| তিনি বলেছিলেন, “আমি এই বিষয়ে চিন্তা করি নাই| আমি জানি না|” যখন তিনি এই কথা বলেছিলেন ঠিক তখনই উত্তরটা আমার কাছে এসে গেছিল – “তাদের কোন সম্প্রদায়গত স্থানের প্রয়োজন নেই কারণ তাদের কাছে আই-ফোন এবং স্মার্টফোন আছে|” পুরানো হিপ্পিদের যেমন সম্প্রদায় ছিল তাদের সেইরকম কিছুর প্রয়োজন নাই| তাদের এখন আই-ফোন এবং স্মার্টফোন আছে| তারা সেই ফোনের উপরে লিখতে পারে আর সেটার সাহায্যে কথা বলতে পারে – এবং এমন ভাণ করতে পারে যে তাদের প্রচুর সংখ্যায় ঘনিষ্ঠ বন্ধু আছে| ঐ যন্ত্রগুলি প্রকৃত বন্ধুদের স্থান নিয়ে নিয়েছে| প্রকৃত বন্ধু তৈরী করার সমস্ত ঝামেলার মধ্যে যাব কেন – যখন ইলেকট্রনিক বা বৈদ্যুতিন বন্ধু স্থাপন করার আরও বেশি সহজ সুবিধা আছে? এলিনর রিগবাই এবং ফাদার ম্যাকেঞ্জি এতটা একাকীত্ব বোধ করতেন না যদি তারা আপনার বৈদ্যুতিন যন্ত্রগুলি পেতেন| তাদেরও আপনারই মতন “বাস্তবিকে না হলেও ফলতঃ” এমন কিছু বন্ধু থাকত| কিন্তু একজন “বাস্তবিকে না হলেও ফলতঃ” বন্ধু প্রকৃত বন্ধুর মতন হয় না| কোনমতেই নয়! আপনি কী দক্ষিন ক্যারোলিনার সেই যুবকটির কথা শুনেছেন? সেই যুবক গত সপ্তাহে নয়জন মানুষ হত্যা করেছে| তার মধ্যে কোনটি বেঠিক ছিল? হ্যাঁ, সে ইন্টারনেট আঁকড়ে জীবনযাপন করত! এটা তার মস্তিষ্ককে এলোমেলো করে দিয়েছিল| যন্ত্রের কৃত্রিমতা ত্যাগ করুন, কমপক্ষে কিছুটা সময়ের জন্যে! যন্ত্রগুলি থেকে সরে আসুন এবং প্রকৃত জীবনযাপন করুন! এবং মন্ডলীতে থাকুন! আর এটা আমাকে ফিরিয়ে দিচ্ছে আমাদের পাঠ্যাংশে,

“এবং আইস আমরা পরস্পর মনোযোগ করি যেন প্রেম ও সৎক্রিয়ার সম্বন্ধে পরস্পরকে উদ্দীপিত করিয়া তুলিতে পারি: এবং আপনারা সমাজে সভাস্থ হওয়া পরিত্যাগ না করি, যেমন কাহারও কাহারও অভ্যাস; বরং পরস্পরকে চেতনা দিই: আর তোমরা সেইদিন যত অধিক সন্নিকট হইতে দেখিতেছ, ততই যেন এ বিষয়ে তৎপর হই” (ইব্রীয় ১০:২৪-২৫)|

আমি এই অধ্যায়ের উপরে দশটিরও বেশি বর্ণনা পড়েছি| তাদের সব কয়টি বর্ণনাই বলছে শাস্ত্রের এই অংশটি স্থানীয় মন্ডলীর সঙ্গে সহভাগিতার প্রয়োজণীয়তার সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত| ডঃ ডব্লিউ. এ. ক্রিস্ওয়েল বলেছেন, “এই অংশটি বাইবেলের শক্তিশালী সত্যতাকে সমর্থন করিয়া স্থানীয় মন্ডলীর চূড়ান্ত গুরুত্ব সরবরাহ করে…[সেই মন্ডলীর] প্রতি বিশ্বস্থ হইবার” (The Criswell Study Bible, Thomas Nelson Publishers, 1979 edition, p. 1438; note on Hebrews 10:25)|

আসুন আপনাকে একটা আধুনিক অনুবাদ দেখাই| আমি শুধুমাত্র KJV থেকে প্রচার করি| আমি অন্য কোন অনুবাদ সুপারিশ করি না| কিন্তু কোন কোন সময়ে একটি অধ্যায়ের প্রভাব “অনুভব” করার জন্যে আধুনিক অনুবাদ পড়া উপকারী হতে পারে| এখানে NASV এবং NIV অনুবাদ পরস্পর জড়িয়ে দেওয়া আছে,

আসুন আমরা মনোযোগ করি কিভাবে পরস্পরকে প্রেমে এবং সৎক্রিয়ায় উদ্দীপ্ত করিয়া তুলিতে পারি| আসুন আমরা সভাস্থ হওয়া পরিত্যাগ না করি, যেমন কাহারও কাহারও অভ্যাস আছে, বরং আসুন পরস্পরকে উৎসাহ দিই - আর তোমরা সেইদিন যত অধিক সন্নিকট হইতে দেখিতেছ (Hebrews 10:24 NASV; 10:25 NIV)|

প্রেম ও সৎক্রিয়ায় “উদ্দীপিত” হওয়ার জন্যে আমাদের মন্ডলীতে থাকার প্রয়োজন আছে| আমাদের প্রয়োজন আছে “পরস্পরকে উৎসাহিত” করার জন্যে মন্ডলীতে থাকার| তারপরে জন আর্থার যাকে বলেছিলেন “শেষতত্ত্ব সংক্রান্ত জরুরী অবস্থা” সেটা সেখানে আছে – যা দেখায় যে মন্ডলীতে থাকার গুরুত্ব ক্রমেই অধিকতরভাবে বৃদ্ধি পায়, যেহেতু “তোমরা সেইদিন যত অধিক সন্নিকট হইতে দেখিতেছ|” সেই “দিন” খ্রীষ্টের দ্বিতীয় আগমনের দিনটির সঙ্গে সম্পর্কযুক্ত| এটা একটা গুরুত্বপূর্ণ ভাববাণী| যতই আমরা এই জগতের শেষের দিনে প্রবেশ করছি ততই আরও বেশি করে স্থানীয় মন্ডলীতে নিজেকে উৎসর্গ করা গুরুত্বপূর্ণ হয়ে পড়ছে| কেন? কারণ যে দিনে আমরা এখন বাস করছি সেই শেষের দিনের প্রতি বিশ্বাস হারিয়ে ফেলার জন্যে সেখানে আরও বৃহত্তরভাবে সামাজিক চাপ আসবে| সপ্তাহে একদিন মন্ডলীতে উপস্থিত থাকার দ্বারা আগেকার দিনে লোকেরা এটার মোকাবিলা করত| কিন্তু বর্তমানে সামাজিক পরিবর্তনের গর্জনপূর্ণ এলোমেলো ঝড় (ভবিষ্যৎকালীন আঘাত!) স্থানীয় মন্ডলীর সহভাগিতার মধ্যে দিয়ে অন্যান্য খ্রীষ্ট বিশ্বাসীদের সঙ্গে আমাদের থাকাটা আরও বেশি করে গুরুত্বপূর্ণ করে তুলছে| থমাস হেলী তার বর্ণনার মধ্যে কি বলেছেন সেটা শুনুন, “যদি কেহ [তাহার বিশ্বাসে] টলটলায়মান হইতে শুরু করে তাহা হইলে আসুন তাহাকে উৎসাহিত এবং শক্তিশালী করিবার প্রতি আমরা দ্রুত ব্যবস্থা লই| আসুন আমরা পরস্পর মনোযোগ করি যেন প্রেম এবং সৎক্রিয়ায় পরস্পরকে প্রেরণা [বা উদ্দীপনা] দিতে পারি| আসুন আমরা দেখি যে আমাদের মধ্যে কেউ যেন [পাপে ও জাগতিকতায়] পিছিয়ে না পড়ে| একত্রে আমরা সবল, কিন্তু একাকী আমরা দূর্বল” (Thomas Hale, The Applied New Testament Commentary, Kingsway Publications, 1997, pp. 913, 914; comment on Hebrews 10:24; Dr. Hymers’ notes in brackets)|

স্থানীয় মন্ডলী শুধুমাত্র একটা জায়গা নয় যেখানে আপনি বাইবেল অধ্যয়ণের জন্য আসেন, যদিও সেটা খুব গুরুত্বপূর্ণ| প্রত্যেকটি সভার পরে আমাদের যে ভোজন হয় শুধুমাত্র তাকে কেন্দ্র করে আমাদের সহভাগিতা তৈরী হয়না, যদিও সেটা খুব গুরুত্বপূর্ণ| কিন্ত আমাদের সহভাগিতা তৈরী হয়েছে মন্ডলীর মূল উদ্দেশ্যের উপর ভিত্তি করে – যা হল মন্ডলীতে টেনে আনার জন্যে অন্যান্য যুবক ব্যাক্তিদের কাছে পৌছান যারা এখনও খ্রীষ্ট বিশ্বাসী নয়| থমাস হেলীর বর্ণনা বলছে, “মন্ডলীর মুখ্য উদ্দেশ্য হইতেছে সুসমাচার প্রচার…যীশুর প্রতি এবং পরিত্রাণের প্রতি পুরুষ ও মহিলাদের পরিচালনা করিবার লক্ষ্যে মন্ডলীর প্রাথমিক উদ্বেগ” (ibid., p. 125)|

সেইজন্যে আমরা নতুন লোকদের বলি, “আমাদের সহিত আসুন! আমাদের সহিত আহার করুন! আমাদের সহিত বন্ধুত্ব করুন! আমাদের সহিত আরাধনা করুন! আমাদের সহিত সুসমাচার প্রচারে বাহির হইয়া পড়ুন! সর্বপ্রকার পথ ধরিয়া মন্ডলীতে আসুন! সান্ধ্যকালীন উপাসনায় আসুন! প্রার্থনা সভায় আসুন! ঈশ্বরের পরিবারে প্রবেশ করুন!” “একত্রে আমরা সবল| একাকী আমরা দূর্বল|”

প্রত্যেকে সঠিকভাবে এই কাজ করবে না| আমরা আপনার জন্যে অপেক্ষা করব| আমরা ব্যাখ্যা করে দেব যে কেন এটা প্রয়োজণীয়| আপনাকে সাহায্য করার জন্য যা আমরা করতে পারি তার সবটাই আমরা করব| এটাই যথাযথভাবে প্রাচীন মন্ডলীগুলি করত| ডঃ মাইকেল গ্রীন Evangelism in the Early Church (Eerdmans Publishing Company, 2003 edition) নামে একটা বই লিখেছিলেন| ডঃ গ্রীন বলেছেন, “…মন্ডলীর উন্নতিসাধনে সহভাগিতা শর্তহীনভাবে চূড়ান্ত ছিল| মানুষেরা [মন্ডলীর প্রতি] আকর্ষিত হইয়াছিল অন্য সহভাগিতার দ্বারা যাহা ছিল সমৃদ্ধশালী এবং উত্তম ফল প্রদানকারী… [তাহারা দেখিয়াছিল] খ্রীষ্ট বিশ্বাসীরা কিভাবে পরস্পরকে প্রেম করে” (পৃষ্ঠা ২৫৬)| “মন্ডলী যে সহভাগিতা অর্পন করিয়াছে, তাহা জাতি, লিঙ্গ, শ্রেণী এবং শিক্ষার বাধা অতিক্রম করিয়া, এক অস্বাভাবিক আকর্ষণ আনিয়াছিল” (পৃষ্ঠা ২৫৩)| ডঃ গ্রীন নির্দেশ করেছিলেন যে কোন কিছুই গোপনে করা হয়নি| অবিশ্বাসীদের সঠিক স্থানে আনা হয়েছিল এবং তাদের সঙ্গে অন্যান্যদের মতন আচরন করা হয়েছিল| প্রাচীন খ্রীষ্ট বিশ্বাসী লেখক টারটুলিয়ান (১৬০-২২০ এ.ডি.) মন্ডলীতে খ্রীষ্ট বিশ্বাসীদের প্রেম এবং সহভাগিতার বিষয়ে বলেছিলেন| তিনি বলেছিলেন আমাদের বিশ্বাসের গোড়ার দিকের বছরগুলিতে বহু সংখ্যায় পরজাতিয়দের খ্রীষ্ট বিশ্বাসীতে পরিনত করতে আকর্ষণ করার জন্য এটা একটা বড় কারণ ছিল (ibid.)| টারটুলিয়ান বলেছিলেন যে প্রেম ও সহভাগিতা যা ছিল তার কারণে উত্তর আফ্রিকাতে দশ হাজারেরও বেশি পরজাতিয়েরা মন্ডলীগুলিতে যোগদান করেছিলেন|

আমি একজন একাকী বালক ছিলাম| আমার পিতা মাতার বিবাহ বিচ্ছেদ হয়েছিল| আমাকে বসবাস করতে হয়েছিল আত্মীয়দের সঙ্গে যারা প্রকৃতপক্ষে চাইতেন না যে আমি তাদের বাড়িতে থাকি| আমি রাস্তা দিয়ে একাকী হেঁটে যেতাম| আমি ছিলাম তাদের মতনই একজন যাদের বিষয়ে জন্ লেন্নন গান করেছিলেন,

“সমস্ত একাকী লোক,
তাহারা সকলে কোথাকার অধিবাসী?”

আমি আপনাদের বলব তারা কোথাকার অধিবাসী ছিল| তারা এই ধরনের একটি মন্ডলীর অধিবাসী ছিল! আপনিও সেখানকার অধিবাসী! কতটাই না দুঃখের বিষয় যে হতভাগ্য জন্ লেন্নন কখনও যীশুতে বিশ্বাস করেননি এবং কোনদিন স্থানীয় মন্ডলীতে আসেননি! শেষের দিকে তিনি সর্বদা মাদকদ্রব্য সেবন করতেন ও দিনের অধিকাংশ সময় বিছানাতেই শুয়ে কাটাতেন|

যদি আমি একটি শক্তিশালী মন্ডলী না পেতাম, আমি নিশ্চিত যে আজ সকালে আমি এখানে থাকতাম না| আমি নিশ্চিত যে আমি আরও অনেক আগেই হতভাগ্য জন্ লেন্ননের মতই মারা যেতাম| আমার বন্ধু আত্মহত্যা করেছিলেন| আমিও কী তাই করতাম? আমি জানি না| কিন্তু এটা জানি যে আমার পাওয়া স্থানীয় মন্ডলীর স্নেহ এবং সহভাগিতার দ্বারা আমি অন্ধকার এবং একাকী জগত থেকে উদ্ধার পেয়েছিলাম| যখন আমি কিশোর ছিলাম মন্ডলী হয়ে গেছিল আমার দ্বিতীয় গৃহ|

আমি জানি যে আপনাদের মধ্যে অনেকেই আমার কথা শুনবেন না| আমি জানি আপনারা সবাই আমাদের সঙ্গে সমস্ত পথ চলবেন না| কিন্তু সবসময়ে মনে রাখবেন যে আমরা আপনাকে ভিতরে আসার আমন্ত্রণ জানিয়েছিলাম! সবসময়ে মনে রাখবেন যে আমরা চেয়েছিলাম আপনি আমাদের সঙ্গে থাকুন| নিশ্চয়ই, আপনাকে কিছু মূল্য দিতে হবে! অবশ্যই! প্রতিশ্রুতি সবসময়ে কিছু মূল্য দেয়! প্রতিশ্রুতি ছাড়া আপনি কখনই একটা দীর্ঘস্থায়ী বিবাহ বন্ধন পেতে পারেন না| আমি আপনাদের প্রতি প্রতিশ্রুতিবদ্ধ হতে চাই| এবং আমি বলব যে আপনিও আমার প্রতি সেইভাবে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ থাকবেন| যেমন থমাস হেলী তার বর্ণনায় বলেছেন, “একত্রে আমরা সবল, কিন্তু একাকী আমরা দূর্বল” (ibid., p. 914)| কেউ হয়ত বলতে পারেন, “আমি এটা করতে পারি না|” নিজের কাছে নিজে সৎ থাকুন| আপনি এটা করতে পারেন, কিন্তু এটা করতে চাইছেন না| আপনি “মুক্ত” হতে চাইছেন| খুব খারাপ| এর অর্থ হল যে আপনি একাকী হয়ে পড়বেন| একত্রে আমরা সবল| একাকী আমরা দূর্বল!

একত্রে আমরা সবল! একাকী আমরা দূর্বল! আজ সকালে এটাই হচ্ছে আপনাদের কাছে আমার বার্তা! যীশু এখন আপনাদের কাছে প্রাপ্তিসাধ্য| তাঁর কাছে আসুন! আপনাকে বিচারের হাত থেকে রক্ষা করার জন্যে তিনি ক্রুশের উপরে মৃত্যু বরণ করেছিলেন| আপনাকে নূতন জীবন দান করার জন্যে তিনি মৃত্যু থেকে পুনরুত্থিত হয়েছিলেন| তিনি এই মুহূর্তে জীবিত আছেন – উপরে পরমদেশে, সেই তৃতীয় স্বর্গে| অপব্যয়ী পুত্রের বড় ভাইয়ের মতন দুয়ারে দাঁড়িয়ে থাকবেন না| বাইবেল বলছে সে, “ভিতরে যাইতে চাহিল না” (লূক ১৫:২৮)| অন্যান্যরা ভিতরে ছিল এক বিশাল, সুখী ভোজসভায় অংশগ্রহণরত| কিন্তু বড় ভাই বলেছিলেন, আমি “ভিতরে যাইব না|” আপনাদের মধ্যের কেউ কেউ এখনও সেইরকম করে চলেছেন| আমরা বলছি, “ভিতরে যীশুর নিকটে আসুন! ভিতরে আসুন এবং ভোজসভায় যোগদান করুন!” কিন্তু আপনি বলছেন, “আমি ভিতরে যাইব না|” আমরা এখনও আপনার জন্যে অপেক্ষা করে আছি! যীশুর কাছে আসুন এবং ভোজসভায় যোগদান করুন!

গৃহে আসুন, গৃহে আসুন,
   আপনারা যারা ভারাক্রান্ত, গৃহে আসুন,
আন্তরিকভাবে, স্নেহপূর্ণভাবে, যীশু ডাকছেন,
   ডাকছেন, হে পাপী, গৃহে আসুন|
("Softly and Tenderly Jesus is Calling" by Will L. Thompson, 1847-1909)|

পিতা, আমি প্রার্থনা করি যেন কেউ একজন যথাযথভাবে যীশুর কাছে আসবেন – এবং সেইসঙ্গে আমাদের মন্ডলী পরিবারেও আসবেন| তাঁর নাম নিয়ে, আমেন| “একত্রে আমরা সবল! একাকী আমরা দূর্বল!” এই কথা ছাড়া আজকের সকালে আমি আর যা যা বলেছি আপনি যদি তার সবটাই ভুলে গিয়ে থাকেন, অনুগ্রহ করে শুধু এইটা মনে রাখবেন! একত্রে আমরা সবল| একাকী আমরা দূর্বল| আমেন|

যদি এই প্রচার আপনাকে আশীর্বাদ দান করেছে তবে অনুগ্রহ করে ডঃ হাইমার্সকে একট ই-মেল পাঠান এবং তাকে বলুন – www.realconversion.com (এখানে ক্লিক করুন)| আপনি যে কোন ভাষায় ডঃ হাইমার্সকে চিঠি লিখতে পারেন, কিন্তু যদি পারেন তো ইংরাজিতেই লিখুন|

(সংবাদের পরিসমাপ্তি)
ডাঃ হাইমার্সের সংবাদ আপনি প্রতি সপ্তাহে ইন্টারনেটের মাধ্যমে
www.realconversion.com এই সাইটে পড়তে পারেন। ক্লিক করুন “সংবাদের হস্তলিপি”

আপনি ডাঃ হাইমার্সকে মেইল পাঠাতে পারেন rlhymersjr@sbcglobal.net - আপনি
তাকে পত্র লিখতে পারেন P.O. Box 15308, Los Angeles, C A 90015.এই ঠিকানায়
। আপনি তাকে টেলিফোন করতে পারেন (818) 352-0452.

এই সুসমাচারের ম্যানুস্ক্রিপ্ট এর ওপর ডাঃ হাইমসের কোন কপিরাইট নেই। আপনারা
ইহা ব্যাবহার করতে পারেন ডাঃ হাইমসের অনুমতি ছাড়াই। অবশ্য, ভিডিও মেসেজ
সবই কপিরাইটের সহিত আছে এবং কেবলমাত্র তার অনুমতি নিয়েই ব্যাবহার করা যাবে।

সংবাদের আগে শাস্ত্রাংশ পাঠ করেছেন ডঃ ক্রেইগটন এল. চান: ইব্রীয় ১০:১৯-২৫ |
সংবাদের আগে একক সংগীত পরিবেশন করেছেন মিঃ বেঞ্জামিন কিনকেড গ্রিফিত:
“Eleanor Rigby” (by Paul McCartney, 1942-) |