Print Sermon

এই সমস্ত প্রচারের পান্ডুলিপি এবং ভিডিওগুলি এখন প্রতি মাসে 215টিরও বেশি দেশের প্রায় 116,000 কম্প্যুটারে www.sermonsfortheworld.com ওয়েবসাইটে পাঠানো হয়| আরও শত শত লোক ইউ টিউবের ভিডিওর মাধ্যমে এগুলি দেখেন, কিন্তু খুব শীঘ্রই তারা ইউটিউব ছেড়ে বেরিয়ে যান, কারণ প্রত্যেকটি ভিডিও প্রচার তাদেরকে আমাদের ওয়েবসাইটের দিকে পরিচালিত করে| ইউটিউব আমাদের ওয়েব সাইটে লোক এনে দেয়| প্রচারের এই পান্ডুলিপিগুলি প্রতি মাসে 34টি ভাষায় প্রচারিত হয় হাজার হাজার লোকের কাছে| প্রচারের এই সব পান্ডুলিপিগুলি গ্রন্থসত্ত্ব দ্বারা সংরক্ষিত নয়, কাজেই প্রচারকগণ আমাদের অনুমতি ছাড়াই এইগুলি ব্যবহার করতে পারেন| মুসলিম এবং হিন্দু রাষ্ট্রসমেত, সমগ্র পৃথিবীতে সুসমাচার ছড়িয়ে দেওয়ার এই মহান কাজে সাহায্য করার জন্য কিভাবে আপনি একটি মাসিক অনুদান প্রদান করতে পারেন তা জানতে অনুগ্রহ করে এখানে ক্লিক করুন|

যখন আপনি ডঃ হেইমার্সকে লিখবেন সর্বদা তাকে জানাবেন যে আপনি কোন দেশে বাস করেন, অথবা তিনি আপনাকে উত্তর দিতে পারবেন না| ডঃ হেইমার্সের ই-মেল ঠিকানা হল rlhymersjr@sbcglobal.net |




আমার ইচ্ছা - তুমি শুচীকৃত হও!

I WILL – BE THOU CLEAN!
(Bengali)

লেখক : ডঃ আর এল হাইমার্স, জুনিয়র।
by Dr. R. L. Hymers, Jr.

২০১৫ সালের, ১লা মার্চ, সদাপ্রভুর একটি দিনে সকালবেলায় লস্ এঞ্জেলসের
ব্যাপটিষ্ট ট্যাবারন্যাকল মন্ডলীতে এই ধর্ম্মোপদেশটি প্রচারিত হয়েছিল
A sermon preached at the Baptist Tabernacle of Los Angeles
Lord’s Day Moring, March 1, 2015

“একদা একজন কুষ্ঠী আসিয়া, তাঁহার সম্মুখে বিনতি করিয়া, ও জানু পাতিয়া, কহিল, যদি আপনার ইচ্ছা হয়, আমাকে শুচি করিতে পারেন| এবং যীশু, করুণাবিষ্ট হইয়া, হাত বাড়াইয়া, তাহাকে স্পর্শ করিলেন, কহিলেন, আমার ইচ্ছা; তুমি শুচীকৃত হও| তৎক্ষণাৎ, কুষ্ঠরোগ তাহাকে ছাড়িয়া গেল, সে শুচীকৃত হইল” (মার্ক ১:৪০-৪২)|

আমি মার্কের লেখা সুসমাচার পড়তে ভালবাসি| তার ইব্রীয় নাম ছিল জন| মার্ক ছিল তার ল্যাটিন নাম, ল্যাটিনে “মারকাস” বলা হত| জন মার্ক ছিলেন প্রেরিত পৌলের আত্মিক পুত্র| পিতর তাকে ডাকতেন, “আমার পুত্র মারকাস” বলে (১ম পিতর ৫:১৩)| পাপিয়াস (৭০-১৬৩) ছিলেন একজন প্রাচীন মন্ডলী পিতা| পাপিয়াস বলেছিলেন যে মার্ক তার সুসমাচার পিতরের কাছ থেকে পেয়েছিলেন| পাপিয়াস বলেন, “মার্ক, পিতরের সেই [সম্পাদক], যত্নসহকারে তার সব কিছুই লিপিবদ্ধ করেছিলেন যা [পিতর] অনুস্মরণ করেছিলেন|” জাষ্টিন মার্টিয়ারও (১০০-১৬৫) বলেছিলেন যে মার্ক এই সুসমাচার পিতরের মুখনিঃসৃত বাক্য থেকেই সংগ্রহ করেছিলেন| অন্য আর একজন মন্ডলী পিতা, ইসুবিয়াস (২৬৩-৩৩৯) বলেছিলেন যে প্রাচীন খ্রীষ্টবিশ্বাসীরা “সেই মতবাদ যা তারা [পিতরের কাছ থেকে] পেয়েছিলেন সেগুলি তাদের হয়ে লিখে দেওয়ার জন্য মার্ককে অনুরোধ জানিয়েছিলেন|”

মার্ক হচ্ছে প্রক্রিয়ার এক সুসমাচার কারণ পিতর একজন প্রক্রিয়ার মানুষ ছিলেন| এই সুসমাচার বিশেষত রোমীয়দের জন্য লেখা হয়েছিল, যারা প্রক্রিয়ার মানুষ হিসাবে পরিচিত ছিলেন| মার্কের সুসমাচারে “এবং” শব্দটি ১,৩৩১ বার উল্লেখিত হয়েছে| “অবিলম্বে” অথবা “তৎক্ষণাৎ” শব্দগুলিও মার্কের সুসমাচারে বার বার প্রতীয়মান হয়েছে| “এবং” শব্দটি সবসময়ে পরিচালনা করে আরও বেশি করে কর্ম প্রক্রিয়ার প্রতি| লক্ষ্য করুন যে পাঁচটি পদ আমাদেরকে পাঠ্যাংশের প্রতি প্ররোচিত করে তার সব কয়টি শুরু হয়েছে “এবং” শব্দটি দিয়ে| আর আমাদের পাঠ্যাংশের তিনটি পদের সব কয়টিই শুরু করা হয়েছে “এবং” শব্দটি দিয়ে|

এবং একদা একজন কুষ্ঠী তাঁহার নিকট আসিলেন” (পদ ৪০)|

এবং যীশু, করুণাবিষ্ট হইলেন” (পদ ৪১)|

এবং যখনই তিনি কহিলেন, তৎক্ষণাৎ কুষ্ঠরোগ তাহাকে ছাড়িয়া গেল, এবং সে শুচীকৃত হইল (পদ ৪২)|

রোমীয়েরা বিশ্বাস করতেন ক্ষমতা এবং প্রক্রিয়ায়| মার্কের সুসমাচারে শুধুমাত্র ১৬ টি অধ্যায় আছে, আর সেগুলি সবই প্রভু যীশু খ্রীষ্টের ক্ষমতা এবং প্রক্রিয়ায় পরিপূর্ণ| খ্রীষ্ট এবং তাঁর কাজকে পুরান নিয়মের উদ্ধৃতি বা বড় অধ্যায়ের সাহায্যে ব্যাখ্যা করা হয়নি| এর বেশির ভাগ অংশই মার্ক ছেড়ে দিয়েছিলেন যেহেতু তিনি আমাদেরকে দেখাচ্ছেন যীশুর ক্ষমতা এবং প্রক্রিয়াকে, যেগুলি মার্কের রোমীয় শ্রোতাদের উপর বেশি করে প্রভাব বিস্তার করেছিল|

লক্ষ্য করুন মার্কের সুসমাচারের প্রথম অধ্যায়টিতে কত বেশি করে প্রক্রিয়া একত্রিত করা হয়েছে,

ব্যপ্তাইজক যোহনের সেই সেবাকাজ|
যীশুর ব্যপ্তিস্ম|
প্রান্তরে যীশুর পরীক্ষা|
গালীলে যীশুর পূর্বকালীন সেবাকাজ|
পিতর ও আন্দ্রিয়ের আহ্বান|
কফরনাহুমে মন্দ আত্মা ছাড়ানো|
শিমোনের শাশুড়ির সুস্থতা দান|
গালীলে যীশুর প্রচার অভিযান|
এবং আমাদের পাঠ্যাংশে কুষ্ঠীর সুস্থতা দান|

খ্রীষ্টকে একজন ক্ষমতাবান এবং প্রক্রিয়াকারী মানুষ হিসাবে দেখান হয়েছে| এবং আজ সকালে তাঁর ক্ষমতা এবং কাজ আপনাকে উদ্ধার করতে পারে|

যীশু! সেই নাম কী মনোহর,
দূর করে আমাদের শোক ও ভয়;
পাতকীর কর্ণে সুমধুর,
এই জীবন, হয় শান্তিময়|
   (“O For a Thousand Tongues” by Charles Wesley, 1707-1788)|

মার্কের প্রথম অধ্যায়ে নয়টি প্রধান ঘটনা একত্রিত করা আছে! ডঃ ম্যাকগী বলেছেন, “সেখানে মার্কের প্রথম অধ্যায়ে খুব সম্ভবত বাইবেলের অন্য যে কোন অধ্যায়ের তুলনায় অনেক বেশি ঘটনা আধেয় করা আছে, আদিপুস্তকের প্রথম অধ্যায় ব্যতিরেকে” (J. Vernon McGee, Th.D., Thru the Bible, volume IV, Thomas Nelson, 1983, p. 161)|

এখন সেটা আমাদের নিয়ে যায় পাঠ্যাংশের, এবং কুষ্ঠরোগগ্রস্ত লোকটির সুস্থতার প্রসঙ্গে,

“একদা একজন কুষ্ঠী আসিয়া, তাঁহার সম্মুখে বিনতি করিয়া, ও জানু পাতিয়া, কহিল, যদি আপনার ইচ্ছা হয়, আমাকে শুচি করিতে পারেন| তিনি, করুণাবিষ্ট হইয়া, হাত বাড়াইয়া, তাহাকে স্পর্শ করিলেন, কহিলেন, আমার ইচ্ছা; তুমি শুচীকৃত হও| তৎক্ষণাৎ, কুষ্ঠরোগ তাহাকে ছাড়িয়া গেল, সে শুচীকৃত হইল” (মার্ক ১:৪০-৪২)|

আসুন এই অধ্যায় থেকে আমরা তিনটি গুরুত্বপূর্ণ সত্য ঘটনার বিষয়ে জেনে নিই|

১| প্রথম, সেই মানুষটির কুষ্ঠ ছিল |

লেবীয় পুস্তকের তেরো এবং চৌদ্দ অধ্যায়ে কুষ্ঠ নামের এই ভয়ঙ্কর রোগটির বিষয়ে বর্ণনা করা হয়েছে| এখানে অনেক আধুনিক কুষ্ঠরোগ (বা হ্যানসেনের রোগ) সমেত, অনেক চর্মরোগের বর্ণনা দেওয়া আছে| একজন টীকালেখক বলেছেন যে এই মানুষটির সম্ভবত প্রকৃত কুষ্ঠরোগ ছিল, নচেৎ তার সুস্থতা এত বেশি সংবেদনশীলতা সৃষ্টি করত না, যেমনটা নাকি ৪৫ পদে দেখা গিয়েছে| নতুন আন্গারস্ বাইবেল অভিধান বলছে, “সেখানে খুব কমই সন্দেহর অবকাশ আছে যে বেশির ভাগ নতুন নিয়মের লোক যাদের কুষ্ঠী বলে বর্ণনা করতেন বাস্তবিক পক্ষে তাদের সকলেরই হ্যানসেনের রোগ ছিল” (The New Unger’s Bible Dictionary, Moody Press, 1988, p. 307)|

এই মানুষটির শরীরে কুষ্ঠরোগ যে নিদারুণ যন্ত্রণাদায়ক আকার ধারণ করেছিল তা ছিল তার শরীরের চামড়ায় চাকা চাকা সাদা দাগ এবং অসাড়তা| তার শরীরের নানা জায়গায় ফোলাভাব দেখা যাচ্ছিল| আর সেগুলি পূঁজসমেত ক্ষততে পরিনত হয়েছিল, যার থেকে রস চুঁইয়ে বের হয়ে আসছিল| রোগটি বৃদ্ধি পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে তার হাত ও পাগুলি বিকৃত ও ফুলে উঠেছিল| রোগটি হয়ত ইতিমধ্যেই তার শরীরের অঙ্গপ্রত্যঙ্গগুলির পচন ধরিয়ে দিয়ে, প্রকৃতপক্ষে শরীরের ক্ষয় শুরু করে দিয়েছিল| যক্ষারোগের আঘাতের চিহ্ন ইতিমধ্যেই তার মুখের উপর ফুটে উঠেছিল, যাতে তাকে দেখতে লাগছিল একটি মুখোস পড়া লোকের মত – খানিকটা সেই ভিক্টোরিয়া যুগের ইংল্যান্ডের “হস্তীমানব”এর মতন, যে কিনা দেখতে এত কুৎসিত ছিল যে তাকে সবসময় একটা বোরখা পড়ে নিজের মুখটাকে আড়াল করে রাখতে হত| কুষ্ঠীর চামড়ার বেশির ভাগটাই মোটা এবং লাল হয়ে গিয়েছিল| এটাই ছিল প্রকৃত কুষ্ঠ, এখন যাকে বলা হয় হ্যানসেনের রোগ| এটা খুব ভয়ঙ্কর! (See The New Unger’s Bible Dictionary, ibid.)|

ডঃ ওয়াল্টার এল. উইলসন বলেন যে এই রোগটি হল এক ধরনের পাপের (অথবা চিত্রের) স্বরূপ| এ হল চিকিৎসার অসাধ্য এবং কলুষিত| বাইবেলের সেই কুষ্ঠীকে অবশ্যই “শুচীকৃত” করতে হবে| কারণ সেই রোগটি সংক্রামক আর সেই কুষ্ঠী অবশ্যই একাকী বাস করবে| সে অবশ্যই নিজের মুখের উপর একটা কাপড় ঢাকা দেবে এবং “অশুচি! অশুচি!” বলে কাঁদতে থাকবে| তাকে অবশ্যই যেতে হবে শিবিরের বা শহরের বাইরে|

একজন অপরিত্রাণপ্রাপ্ত ব্যক্তির জন্য এগুলি সবই সত্যি| তিনি কোন একটি মন্ডলীর সদস্য হতে পারে না| তার পাপপূর্ণ রোগের কারণে তিনি স্বর্গে প্রবেশ করতে পারেন না| (See Walter L. Wilson, M.D., A Dictionary of Bible Types, Hendrickson Publishers, 1999 reprint, p. 257)| লেবীয় ১৩: ৪৫, ৪৬ পদগুলিতে বলা হচ্ছে,

“আর যে কুষ্ঠীর ঘা হইয়াছে, তাহার বস্ত্র চেরা যাইবে, ও তাহার মস্তক মুক্তকেশ থাকিবে, ও সে আপনার ওষ্ঠ বস্ত্র দ্বারা ঢাকিয়া, অশুচি, অশুচি, এই শব্দ করিবে| যতদিন তাহার গাত্রে ঘা থাকিবে ততদিন সে অশুচি থাকিবে; সে অশুচি: সে একাকী বাস করিবে; শিবিরের বাহিরে তাহার বাসস্থান হইবে” (লেবীয় ১৩:৪৫, ৪৬)|

লেবীয় ১৩:১ পদের উপরে স্কোফিল্ডের মন্তব্য বলছে, “কুষ্ঠ পাপের বিষয়ে বলে এইভাবে (১) রক্তের মধ্যে থাকে; (২) জঘণ্যভাবে দৃষ্টিগোচর হয়; (৩) মানবিক উপায়ে চিকিৎসার অসাধ্য” (The Scofield Study Bible, Oxford University Press, 1917, p. 141; note on Leviticus 13:1)|

কুষ্ঠ হল কোন এক ব্যক্তির, সম্পূর্ণ নৈতিক বিচ্যুতির প্রতীক, অথবা চিত্র| নৈতিক বিচ্যুতি আমাদের রক্তের মধ্যে নিহিত আছে, যা আমাদের মধ্যে প্রবাহিত হয়েছে আদম থেকে| এটা অল্পস্বল্প বিদ্রোহ সঙ্গে করে, ছোট আকারে শুরু হয়, এবং পরিশেষে এটা বড় বিরক্তি এবং ঘৃণার উদ্রেক ঘটায়|

“কেননা মাংসের ভাব ঈশ্বরের প্রতি শত্রুতা” (রোমীয় ৮:৭)|

এবং বাইবেল বলে,

“বুঝে এমন কেহই নাই, ঈশ্বরের অন্বেষণ করে এমন কেহই নাই| সকলেই বিপথে গিয়াছে, তাহারা একসঙ্গে অকর্ম্মণ্য হইয়াছে; সৎকর্ম্ম করে এমন কেহই নাই, একজনও, নাই” (রোমীয় ৩:১১-১২)|

জন্ ওয়েস্লী (১৭০৩-১৭৯১) একজন ক্যালভীনপন্থী ব্যক্তি ছিলেন না, কিন্তু তিনি এই অধ্যায়টির সম্বন্ধে বলেছিলেন যে, অপরিত্রাণপ্রাপ্ত লোকেরা হলেন “অসহায়, শক্তিহীন, তাহাদের নিজেদের প্রতি অথবা অপরের প্রতি কোন উপকার করিতে অক্ষম…[সমস্ত লোক] হচ্ছে [পাপের] দোষ এবং শক্তির অধীন,” রোমীয় ৩:১২, ৯ পদগুলির উপরে টিকা (John Wesley, M.A., Explanatory Notes Upon the New Testament, volume II, Baker Book House, 1983 reprint, pp. 33, 34; notes on Romans 3:12, 9)|

ডঃ মার্টিন লয়েড-জোন্স (১৮৯৯-১৯৮১) বলেছিলেন, “পাপের মানুষ…পাপের দ্বারা শাসিত এবং পরিচালিত এবং নিয়ন্ত্রিত” (Martyn Lloyd-Jones, M.D., Assurance, Romans 5, The Banner of Truth Trust, 1971, p. 306)|

ডঃ ইসাক্ ওয়াটস্ তার লেখা একটি গানে এইভাবে এটা লিখেছেন,

প্রভু, আমি অতি মন্দ, পাপ আমাকে গর্ভে ধারন করেছে, এবং জন্মেছি অপবিত্র ও অশুচি অবস্থায়;
এমন মানুষ থেকে উৎপন্ন যার দোষ বংশকে কলুষিত করে, এবং আমাদের সকলকে কলঙ্কিত করে|

দেখ, আমি তোমার সামনে পতিত; আমার একমাত্র আশ্রয় তোমার অনুগ্রহ;
বাইরের কোন কিছুই আমাকে শুচি করতে পারে না; কুষ্ঠ আমার গভীরে শুয়ে আছে|
   (Psalm 51, by Isaac Watts, D.D., 1674-1748)|

পাপ মনকে অন্ধের মতন অন্ধকারে নিয়ে যায়| এটা আপনাকে চিন্তা করতে বাধ্য করে, “সেখানে ত্যাগ করার জন্য অনেক কিছু আছে| যদি আমি একজন প্রকৃত খ্রীষ্ট বিশ্বাসী হই, আমাকে অনেক কিছু ত্যাগ করতে হবে|” সেইজন্যে, আপনাকে পাপের দাসত্বের মধ্যে রাখা হয়েছে, সমস্ত সময়ের জন্য এবং চিরকালের জন্য এক আশাহীন অবস্থার মধ্যে থেকে আপনি দন্ডপ্রাপ্ত হয়েছেন| অথবা পাপ আপনাকে চিন্তা করতে বাধ্য করে, “প্রত্যেক রবিবারে আমি মন্ডলীতে থাকি| আমি সম্পূর্ণ ঠিক আছি|” সেই কারণে আপনি কুষ্ঠের পাপের মধ্যে চলে যাচ্ছেন, কোনরকমের কোন আশা ছাড়াই| অথবা পাপ আপনাকে চিন্তা করতে বাধ্য করে, “আমার অবশ্যই নিশ্চিত কোন প্রমানের অনুভূতি থাকবে যে আমি পরিত্রাণ পেয়েছি|” কিন্তু বাইবেল কখনও আমাদের বলে না যে আমরা অনুভূতির দ্বারা পরিত্রাণ পাই| আমরা যীশু খ্রীষ্টতে বিশ্বাসের দ্বারা পরিত্রাত হই| যীশুতে বিশ্বাসের পরিবর্তে কেউ কেউ মাসের পর মাস ধরে, কেউ কেউ বা বছরের পর বছর ধরে, অনুভূতির অন্বেষণ করে চলেছেন| সেটা পাপের কুষ্ঠ দ্বারা ধ্বংসপ্রাপ্ত হয়েছে এমন একটা হৃদয় ছাড়া আর কিছুই নয়! তার একটি গানে, অগাস্টাস টপলেডি বলেছেন,

সহসা বিস্ময় বিহ্বল এবং নিদারুণ বেদনাতে,
আমি আমার দৃষ্টি তাঁহার প্রতি ফেরাই;
আমার হৃদয় পাপের বোঝায় ভারাক্রান্ত,
প্রতিটি পাপের অবস্থান স্থল|

মন্দচিন্তার ভীড়গুলি কি,
সেখানে মন্দ আবেগ কি!
অবিশ্বাস, অসঙ্গত আচরণ, ছলনাময় দোষ,
অহংকার, হিংসা, ক্রীতদাসসুলভ ভীতি|
   (“The Heart” by Augustus Toplady, 1740-1778).

আবার, ডঃ ওয়াটস্ বলেছেন,

“বাহিরের কোন কিছুই আমাকে শুচি করিতে পারে না;
কুষ্ঠ আমার গভীরে শুইয়া আছে|”

তথাকথিত “পাপীর প্রার্থনা”র শব্দগুলি বলাটা কোন ভাল কাজ করে না| একজন যুবক ব্যক্তি আমাদের বলেছিল, “আমি সেই প্রার্থনা শুধু এইজন্য করেছিলাম যেন আমি বাইরে যেতে আর খেলতে পারি!” এই ধরনের কোন কিছু কাউকে পরিত্রাণ করতে যাচ্ছে না! অন্য অনেকে সেবাকার্যের শেষে “সামনে এগিয়ে আসে” নিজেদের “উৎসর্গ” করার জন্য| সেটাও এক অর্থে ভাল না| এগুলি কেবল ভ্রান্ত এবং অসার “বাহ্যিক নিদর্শন|”

“বাহিরের কোন কিছুই আমাকে শুচি করিতে পারে না;
কুষ্ঠ আমার গভীরে শুইয়া আছে|”

আমাদের পাঠ্যাংশে সেই হতভাগ্য কুষ্ঠীর বিষয়ে এইরকমই বলা হয়েছিল| সেই মানুষটি কুষ্ঠ রোগাক্রান্ত ছিল| সে জানত যে সে যাই করুক বা বলুক না কেন সেটা তাকে শুচি করতে পারবে না|

২| দ্বিতীয়, সেই মানুষটি যীশুর কাছে এসেছিল |

“একদা একজন কুষ্ঠী আসিয়া, তাঁহার সম্মুখে বিনতি করিয়া, ও জানু পাতিয়া, কহিল, যদি আপনার ইচ্ছা হয়, আমাকে শুচি করিতে পারেন| (মার্ক ১:৪০)|

এই হতভাগ্য কুষ্ঠী সন্দেহাতীতভাবে যীশুর বিষয়ে শুনেছিলেন| জন্ ওয়েস্লী বলেছিলেন যে সেই কুষ্ঠী এমনকী হয়তো যীশুকে প্রচার করতেও শুনেছিলেন| ওয়েস্লী বলেছেন, “সম্ভবত এই কুষ্ঠী, যদিও তিনি লোকেদের সঙ্গে মিশতেন [মিশতে পারতেন] না, তবুও তিনি দূর থেকে আমাদের প্রভুর প্রচার শুনেছিলেন” (ibid.)| মিঃ ওয়েস্লী সম্ভবত সেই বিষয়ে জেনেছিলেন, যেহেতু হাজার হাজার লোক এসেছিলেন দূর থেকে তাঁর প্রচার শোনার জন্য – এবং পরিত্রাণপ্রাপ্ত হয়েছিলেন! ১৭৪৫ সালে মিঃ ওয়েস্লীকে লেখা একটি চিঠির অংশবিশেষ এখানে দেওয়া হল,

তখন অবধি যখন আমি শুনিয়াছিলাম আপনি এবং আপনার ভাই [চার্লস] এর নাম, আমি নিজেকে জানিতাম না| ইহার পর আমি দেখিয়াছিলাম যে আমি একজন অবিশ্বাসী ছিলাম, যাহাকে খ্রীষ্ট ছাড়া আর কেহই সাহায্য করিতে পারিত না| আমি তাঁহার প্রতি ক্র্ন্দন করিয়াছিলাম, এবং তিনি সেই ক্রন্দন শুনিয়াছিলেন এবং সেই কথাগুলি জোরপূর্বক আমার হৃদয়ে বলিয়াছিলেন, “শান্তিতে প্রস্থান কর, তোমার পাপসকল ক্ষমা করা হইয়াছে|” (John Wesley, M.A., The Works of John Wesley, volume I, Baker Book House, 1979 reprint, page 527)|

এবং এটাই হল সেই কাজ যা যীশু সঠিকভাবে এই হতভাগ্য কুষ্ঠীর জন্য করেছিলেন| এবং তিনি ঠিক সেটাই আপনার জন্য করবেন যখন আপনি অবনত মস্তকে নিজেকে নত করেন আর তাঁতে বিশ্বাস স্থাপন করেন, ঠিক যেমন কুষ্ঠী করেছিল|

৩| তৃতীয়, সেই মানুষটি শুচীকৃত হইলেন |

আমি এখানে অবশ্যই পঞ্চসপ্তমী এবং অনন্যসাধারন প্রতিভাধর “আরোগ্যকারী”দের সম্বন্ধে দু চার কথা বলব| যখন শারীরিক সুস্থতার উপর বেশি করে জোর দেওয়া হয়, তখন সুসমাচারের শক্তি অস্পষ্ট হয়ে যায়, এবং প্রায় সম্পূর্ণভাবে ছেড়ে যায়| আমরা অবশ্যই মানুষের শারীরিক সুস্থতার প্রতি আমাদের দৃষ্টি নিবদ্ধ করব না| যীশু আমাদের কুষ্ঠের পাপ থেকে রক্ষা করার জন্য ক্রুশের উপরে মৃত্যুবরণ করেছেন, কানের ব্যাথা বা টনসিলাইটিসের হাত থেকে আমাদের রক্ষা করার জন্য নয়! “আরোগ্যকারী”দের বিষয়ে বলতে গিয়ে ডঃ এ. ডব্লিউ. টোজার (১৮৯৭-১৯৬৩) বলেছেন,

ইহা অধিক লজ্জাহীনভাবে নিজের প্রতি লোকের মনোযোগ আকর্ষণের প্রবণতা উৎপন্ন করিয়াছে, খ্রীষ্টের উপর নির্ভরতার পরিবর্তে অভিজ্ঞতার উপর নির্ভরতার প্রবণতা এবং প্রায়ই মাংসের কাজ হইতে আত্মার সক্রিয়তাকে পৃথক করিবার সামর্থ্যের অভাব পরিলক্ষিত হইয়াছে (A. W. Tozer, D.D., Keys to the Deeper Life, Zondervan Publishing House, n.d., pp. 41, 42)|

হ্যাঁ, আমি বিশ্বাস করি ঈশ্বর আমাদের দেহকে সুস্থ করতে পারেন| আমি দৃঢ়ভাবে বিশ্বাস করি যে তিনি পারেন! কিন্তু কী হত যদি আমাদের বেছে নিতে হত আমাদের শারীরিক আরোগ্য লাভ এবং পাপ-কলঙ্কিত আত্মার আরোগ্য লাভের মধ্যে যে কোন একটিকে? আমার কাছে, এই মনোনয়ন করাটা খুব সহজ হবে| অতি দ্রুত আমাদের দেহের অবসান হয়| কিন্তু আমাদের আত্মা অসীম অনন্তকালের মধ্যে অবস্থান করে| এটা খুব সহজে বোঝা যাচ্ছে যে কোনটি সবচেয়ে বেশি গুরুত্বপূর্ণ!

আরোগ্যপ্রাপ্ত কুষ্ঠীর এই ছোট্ট গল্পটির মধ্যে আমরা শুধু শারীরিক আরোগ্যলাভই দেখতে পাচ্ছি তাই নয়, কিন্তু সেইসঙ্গে একটা আত্মিক সুস্থতাও দেখতে পাচ্ছি| আমরা নিশ্চিতভাবে খ্রীষ্টের শিক্ষাকে একই বক্তব্যের শব্দান্তরে প্রকাশ করতে পারি,

“বস্তুতঃ মনুষ্য যদি সমুদয় জগৎ [শারীরিক আরোগ্যলাভ সহ] লাভ করিয়া, আপন প্রাণ খোয়ায়, তবে তাহার কী লাভ হইবে?” (মার্ক ৮:৩৬)|

না, এই ব্যক্তি জানতেন যে তার কুষ্ঠ ছিল কোন কিছুর গভীরতর চিহ্ন স্বরূপ| তিনি নিজের আরোগ্যের জন্য যীশুকে বলেননি| তিনি বলেছিলেন, “প্রভু, যদি তোমার ইচ্ছা হয়, আমাকে শুচি করিতে পারেন|” তিনি শুধুমাত্র “মাংসের অন্বেষণে ছিলেন না যাহা নিজেই ক্ষয়প্রাপ্ত হয়|” “কুষ্ঠ আমার গভীরে শুইয়া আছে|” এবং সে কারণেই যীশু খুব তাড়াতাড়ি এবং বিস্ময়করভাবে তাকে উদ্ধার করেছিলেন|

“যদি আপনার ইচ্ছা হয়, আমাকে শুচি করিতে পারেন” (মার্ক ১:৪০)|

“তিনি, করুণাবিষ্ট হইয়া, হাত বাড়াইয়া, তাহাকে স্পর্শ করিলেন, কহিলেন, আমার ইচ্ছা; তুমি শুচীকৃত হও” (মার্ক ১:৪১)|

এবং তৎক্ষণাৎ “তিনি শুচীকৃত হইলেন” (মার্ক ১:৪২)|

এটা সুসমাচারের ক্ষমতা প্রদর্শন করে| আপনার করা সমস্ত পাপ থেকে আপনাকে শুচি করার জন্য যীশু ক্রুশের উপরে নিজের রক্ত বইয়ে দিয়েছেন| আপনাকে নতুন জীবন দেওয়ার জন্য যীশু মৃত্যু থেকে উত্থাপিত হয়েছিলেন| যখন আপনি সাধারন বিশ্বাসে, এই লোকটির মতন, যীশুর কাছে আসেন তখন যীশু আপনাকে উদ্ধার করবেন “তৎক্ষণাৎ,” সেই মুহূর্তে! আমার কাছে, এটা হল বাইবেলের সর্বশ্রেষ্ঠ বার্তা! “যদি আপনার ইচ্ছা হয়, আমাকে শুচি করিতে পারেন|” “আমার ইচ্ছা; তুমি শুচীকৃত হও” – এবং তিনি শুচীকৃত হলেন! এই হল সুসমাচার! এটাই হল পরিত্রাণের শুভ বার্তা! এটাই হল আপনার একমাত্র আশা! “যীশু, যদি তোমার ইচ্ছা হয়, আমাকে শুচি করিতে পার|” “আমার ইচ্ছা; তুমি শুচীকৃত হও|” যীশুর কাছে আসুন| তাঁকে বিশ্বাস করুন| যীশুকে বিশ্বাস করা খুব সহজ| তিনি আপনাকে মুহূর্তের মধ্যে শুচি করবেন! – ঠিক যেভাবে তিনি সেই কুষ্ঠীকে শুচি করেছিলেন! আর অপেক্ষা করার কোন প্রয়োজন নেই! যীশুতে বিশ্বাস স্থাপন করুন আর শুচীকৃত হন! পিতা, আমি প্রার্থনা করছি যেন আজ সকালে কেউ একজন যীশুতে বিশ্বাস স্থাপন করেন, এবং তাঁর রক্তের দ্বারা শুচীকৃত হন! আমেন|

এবং আমি জানি, হ্যাঁ, আমি জানি,
   যীশুর রক্ত পারে জঘণ্য পাপীকে শুচি করতে,
এবং আমি জানি, হ্যাঁ, আমি জানি,
   যীশুর রক্ত পারে জঘণ্য পাপীকে শুচি করতে|
(“Yes, I Know!” by Anna W. Waterman, 1920)|

(সংবাদের পরিসমাপ্তি)
ডাঃ হাইমার্সের সংবাদ আপনি প্রতি সপ্তাহে ইন্টারনেটের মাধ্যমে
www.realconversion.com এই সাইটে পড়তে পারেন। ক্লিক করুন “সংবাদের হস্তলিপি”

আপনি ডাঃ হাইমার্সকে মেইল পাঠাতে পারেন rlhymersjr@sbcglobal.net - আপনি
তাকে পত্র লিখতে পারেন P.O. Box 15308, Los Angeles, C A 90015.এই ঠিকানায়
। আপনি তাকে টেলিফোন করতে পারেন (818) 352-0452.

এই সুসমাচারের ম্যানুস্ক্রিপ্ট এর ওপর ডাঃ হাইমসের কোন কপিরাইট নেই। আপনারা
ইহা ব্যাবহার করতে পারেন ডাঃ হাইমসের অনুমতি ছাড়াই। অবশ্য, ভিডিও মেসেজ
সবই কপিরাইটের সহিত আছে এবং কেবলমাত্র তার অনুমতি নিয়েই ব্যাবহার করা যাবে।

সংবাদের আগে শাস্ত্রাংশ পাঠ করেছেন মিঃ আবেল প্রধুম্মে: মার্ক ১:৪০-৪২ |
সংবাদের আগে একক সংগীত পরিবেশন করেছেন মিঃ বেঞ্জামিন কিনকেড গ্রিফিত:
“Yes, I Know!” (by Anna W. Waterman, 1920).


খসড়া চিত্র

আমার ইচ্ছা – তুমি শুচীকৃত হও!

লেখক : ডঃ আর এল হাইমার্স, জুনিয়র।

“একদা একজন কুষ্ঠী আসিয়া, তাঁহার সম্মুখে বিনতি করিয়া, ও জানু পাতিয়া, কহিল, যদি আপনার ইচ্ছা হয়, আমাকে শুচি করিতে পারেন| তিনি, করুণাবিষ্ট হইয়া, হাত বাড়াইয়া, তাহাকে স্পর্শ করিলেন, কহিলেন, আমার ইচ্ছা; তুমি শুচীকৃত হও| তৎক্ষণাৎ, কুষ্ঠরোগ তাহাকে ছাড়িয়া গেল, সে শুচীকৃত হইল” (মার্ক ১:৪০-৪২)|

(১ম পিতর ৫:১৩)

১| প্রথম, সেই মানুষটির কুষ্ঠ ছিল, লেবীয় ১৩:৪৫,৪৬; রোমীয় ৮:৭; ৩:১১-১২ |

২| দ্বিতীয়, সেই মানুষটি যীশুর কাছে এসেছিল, মার্ক ১:৪০ |

৩| তৃতীয়, সেই মানুষটি শুচীকৃত হইলেন, মার্ক ৮:৩৬; ১:৪০, ৪১, ৪২ |